৫ই নভেম্বর, ২০১৬

– ওই
– বল?
– কবে দেখা হচ্ছে?
– Aren’t you forgetting something?
– হ্যাঁ আমি জানি। আমাদের সম্পর্ক নেই। তার জন্য দেখা করা যাবে না এরকম মাথার দিব্যি কে দিয়েছে?
– কেউ দেয় নি। কিন্তু আমার একদম সময় হবে না রে। Sorry.
– Okay.

২৫ নভেম্বর, ২০১৬

– শোন না।
– হুম?
– চল না Please একদিন?
– না। জোর করিস না। আবার দুর্বল হয়ে যাব আমরা।
– নাহ। হব না। আমি বলছি শোন।
– নারে। ওরকম হয় না।
– Please?
– নাহ। আর দেখা করে কীই বা কথা বলব আমরা?
– Okay. ছাড়।

১৭ ডিসেম্বর  ২০১৬

– কাল আয়।
– মানে?
– মানে আমার বাড়ি আয়।
– তুই কি পাগল?
– Umm.. হ্যাঁ তো।
– গিয়ে কী হবে?
– কিছুই হবে না।
– তাহলে?
– খেলা দেখব। ISL Final.
– ওখানেও তো ঝামেলা হবে আমাদের। তুই তো জানিস আমি শচীন। আর তুই দাদা পাগল।
– হোক না ঝামেলা। খেলা দেখে চলে যাস তুই। আমি নামিয়ে আসব তোর বাড়িতে।
– ঠিক হবে কী এটা? মানে…
– এই খেলা দেখব বলেছি? অন্য কিছু দেখতে চাই নি। কাল আয় ইডিয়ট!

১৮ ডিসেম্বর , ২০১৬

– হা হা। তুই আজ হারছিস।
– মোটেই না। দেখ তুই।
– গোল খেয়ে গেলি এর পরেও বলবি।
– একটু অপেক্ষা কর.

– গোল! Yes!
– Shit!
– কি রে? কি বলেছিলাম?
– হুম।
– আরে ঘুরে দাঁড়ানোটা রক্তে আছে রে। রক্তে। বুঝলি?
– তাও কেরালা জিতবে।
– স্বপ্ন দেখ লাব।
– তুই দেখ না। দাদা এবার হারছে।
– Challenge?
– umm… Okay. Done.
– জিতলে কী দিবি?
– জিতবি না। উফফ!
– যদি জিতি?
– যা চাইবি তাই দেবো। এখন খেলা দেখতে দে।
– ঠিক তো?
– হ্যাঁ চুপ একদম।

– এই তো! যাহ! হেরে গেলি।
– মোটেই না। এই একটা গোল মিস করেছে হিউম। এখনো চারটে শট আছে।
– পারবি না। পারবি না।
– যদি পারি যা চাইব দিতে হবে কিন্তু।
– কি চাইবি শুনি।
– তোকে চুমু খাবো ঠোঁটে।
– What?
– হ্যাঁ মানে যা চাইবো দিবি তাই তো কথা ছিল।
– Fine. জিতবি তো না এটা একদম Sure।
– দেখা যাক।

[খেলা শেষ হওয়ার পর]
– এটা কী হল?
– এটা আটলেটিকো দি কলকাতা ম্যাম। সৌরভ গাঙ্গুলীর টিম।
– দেবজিৎ এর পায়ে লেগে গোল টা হল না। তাই জন্যে জিততে পারলি।
– ওসব অজুহাত পরে দেবেন। আগে আমার পাওনা টা মিটিয়ে দিন।
– কি যাতা হল। যেতা ম্যাচ টা… এভাবে… এরকম করে খেললে টিম কী করে জিতবে। ধুর!  বিরক্তিকর। কোত্থেকে নিয়ে আসে এই Player গুলো কে। এর চেয়ে তো….
– মৌ?
– কী?
– Shhh…. চোখ বন্ধ কর।

১৯ ডিসেম্বর ২০১৬

– Good Morning.
– মোটেই Good Morning না।
– কেন কেন?
– কাল যেটা হল সেটা ভালো হল না।
– কোনটা?
– তুই জানিস কোনটা শয়তান। আমাকে খেলা দেখতে ডেকে…
– ওহ! আমরা একটা কাজ করতে পারি। আমার Time Machine এ করে কাল রাতে ফিরে যাই চল। Then খেলা শেষ হওয়ার পরের মুহুর্তে গিয়ে তোকে বাড়ি ছেড়ে দিয়ে আসি।
– (দীর্ঘশ্বাস ফেলে) একটা কথা বলি?
– কী
– যদি সত্যি তোর Time Machine থাকে। তাহলে চল কালকে ফিরে যাই। খেলা শেষ হওয়ার মুহুর্তে গিয়ে যেটা হল কাল সেটা আবার করি। তারপর সকালে উঠে আবার Time Machine এ করে ফেরৎ গিয়ে আবার এক জিনিস করি চল। তারপর…
– মৌ?
– হুম?
– Shhh… চোখ বন্ধ কর।

তবু মনে রেখো ২

Post navigation


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: কপি করবেন না দাদা